শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ০৮:০৮ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
সংবাদ শিরোনাম :
পার্বত্য চুক্তি বাস্তবায়নেই পাহাড়ের স্থায়ী শান্তি প্রতিষ্ঠিত হবে স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে গাজীপুর মহানগর যুবলীগের শোভাযাত্রা কালীগঞ্জে স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত র‍্যাব ১৫ র অভিযানে কেএনএফ এর ২ স্বক্রীয় সদস্য গ্রেফতার গাজীপুরে এক পরিবারের দুই ছেলে নিখোঁজ কাশিমপুর থানার ৬ নং ওয়ার্ড আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের কমিটিতে সাধারণ সম্পাদক হিসেবে পাপন রায় মনোনীত নিশানের পক্ষে জোরালো অবস্থান চবি ছাত্রলীগের সাবেক নেতৃবৃন্দের হাতিয়ায় জাতীয় পুষ্টি সপ্তাহের উদ্ভোধন মাটিরাঙ্গা উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে বিপুল ভোটে জয়ী আবুল কাশেম ভূঁইয়া পেশাদারিত্বের সহিত দ্বায়িত্ব পালন করতে হবে; পুলিশ সুপার মুক্তা ধর 

বান্দরবানে কলেজ ছাত্রলীগ নেতার বিবস্ত্র ভিডিও ভাইরাল

দিগন্তের বার্তা ২৪ ডেস্ক : / ১০৯৯ বার পঠিত
আপডেট : শনিবার, ৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ২:২৭ অপরাহ্ণ

কে এইচ মহসিন বান্দরবানঃ বান্দরবান সরকারি কলেজ শাখা ছাত্রলীগের আহ্বায়ক টিপু দাশের বিবস্ত্র ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে। এ নিয়ে বেশ সমালোচনার সৃষ্টি হয়েছে। এর আগে একই কলেজে ছাত্রলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক পদে দায়িত্বে ছিলেন তিনি।

ভাইরাল হওয়া একটি ভিডিওতে দেখা যায়, একটি কক্ষে টিপু দাশ বিবস্ত্র হয়ে এক নারীর সঙ্গে ভিডিও কলে কথা বলছেন। তা ছাড়া অকথ্য ভাষায় নারীর সঙ্গে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে চ্যাটিং করছেন। অপরপ্রান্তে কথোপকথন করা নারীটি টিপু দাশের আপত্তিকর কর্মকাণ্ডের ভিডিও গোপনে ধারণ করে তা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দিলে তা ভাইরাল হয়ে যায়।

জানা যায়, এই ছাত্রলীগ নেতা বান্দরবান সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের আহ্বায়ক এবং দীর্ঘ দুই বছর ধরে এই কলেজ শাখার দায়িত্ব পালন করে আসছে।

জানা যায়, গত ২০২২ সালের ৩ এপ্রিল রাতে বান্দরবান সরকারি কলেজের আবাসিক হলে প্রবেশ করে তৌহিদ নামের এক ছাত্রকে মারধর করে কলেজ ছাত্রলীগের আহ্বায়ক টিপু দাশ। ওই কলেজের ছাত্র রবিন কান্তি নাথ কালে পরিবর্তনে হিন্দু ধর্ম ত্যাগ করে ইসলাম ধর্মগ্রহণ করেছিলেন। সে ক্ষোভে আবাসিক হলে প্রবেশ করে তৌহিদকে মারধরের পর পুলিশের হাতে তুলে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছিল তার বিরুদ্ধে।

এদিকে বান্দরবান সরকারি কলেজ ছাত্রলীগে টানা ৭ বছর ধরে দায়িত্ব পালন করছেন এই কলেজ নেতা। ২০১৮ সাল থেকে যুগ্ম সম্পাদক পদে কলেজ ছাত্রনেতা হিসেবে ও ২০২২ সালে এসে ৩৭ জন কমিটি সদস্য করে টিপু দাশকে আহ্বায়কের দ্বায়িত্ব দেওয়া হয়।

কিন্তু সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে চ্যাটিংয়ে সর্বশেষ অপরপ্রান্তে এক নারী কলেজ ছাত্রলীগ নেতাকে বার্তায় লিখেছিলেন— ‘তুই গুণ্ডা কলেজের কত মেয়েকে নষ্ট করলি’।

তবে ভিডিওর বিষয়ে জানতে চেয়ে একাধিকবার চেষ্টা করেও ওই ছাত্রলীগ নেতার সঙ্গে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।

বান্দরবান জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি পুলু মারমা বলেন, বিষয়টি আমি শুনেছি ও জেনেছি। যেহেতু ভিডিও ভাইরাল হয়েছে অধিকাংশ মানুষ জেনে গেছে। তবে এ বিষয়ে সাংগঠনিকভাবে কী পদক্ষেপ নেওয়া হবে তা আলোচনা করার পর বিস্তারিত জানানো হবে।

Facebook Comments Box


এ জাতীয় আরও খবর
এক ক্লিকে বিভাগের খবর