শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৪, ১২:০৪ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
সংবাদ শিরোনাম :

সেনবাগে বন্ধ দোকান ঘর থেকে কবিরাজের অর্ধ গলিত লাশ উদ্ধার

দিগন্তের বার্তা ২৪ ডেস্ক : / ৪৫৮ বার পঠিত
আপডেট : মঙ্গলবার, ৪ জুলাই, ২০২৩, ১:০৮ পূর্বাহ্ণ

সেনবাগ(নোয়াখালী) প্রতিনিধি:নোয়াখালীর সেনবাগের কানকিরহাট দক্ষিণ বাজারের একটি বন্ধ দোকান ঘর থেকে হেকিম আব্দুল গফুর (৭০) নামের এক কবিরাজের অর্ধ গলিত মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

সোমবার রাত ৯ টার দিকে সেনবাগ থানার এস আই আবদুল আলিমের নেতৃত্বে পুলিশ কবিরাজ গফুরের মৃতদেহটি উদ্ধার করে।উদ্ধারকৃত গফুর উপজেলার কেশারপাড় ইউনিয়নের কেশারপাড় গ্রামের বারেক হাজারী বাড়ির মৃত হাজর আলীর ছেলে।

থানা ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গফুর পেশায় একজন কবিরাজ। দীর্ঘ ১৫/২০ বছর যাবত সেনবাগ থানার কানকিরহাট দক্ষিন বাজারস্থ নুরুল হকের বাড়ির একটি দোকান ঘরে থাকিয়া কবিরাজি করতেন। মাঝে-মধ্যে কেশারপাড় দীঘির পাড়স্থ নিজ বাড়ীতে যেয়ে পরিবারের সাথে দেখা করে পূনরায় দোকানে চলে আসতেন। তার ৪ ছেলে ও ২ মেয়ে রয়েছে। ছেলেরা দিনমজুর এবং মেয়েরা বিবাহিতা।

গত ২৮ জুন বিকাল ৩টার দিকে বাড়ীতে গিয়ে আবার দোকানে চলে আসেন। তারপর থেকে পরিবারের লোকজনের সাথে আর যোগাযোগ হয়নি। বাড়ীর লোকজন তাকে ফোন করলেও কল ধরেন নি। পরবর্তীতে সোমবার রাতে পঁচা গন্ধ পেয়ে পথচারীরা দোকানে উঁকি দিয়ে দেখেন, মেঝেতে লাশ পড়ে আছে। মৃতদেহ পঁচে ফুলে গেছে। তীব্র দূর্গন্ধ ছড়াচ্ছে। নাক-মুখ দিয়ে রক্ত বের হচ্ছে। শরীরের কোথাও কোন আঘাতের চিহ্ন নেই।এ সময় ঘরটিতে লাইট ও ফ্যান চলা অবস্থায় ছিল বলে জানা যায়।
এ সংবাদ পেয়ে সেনবাগ থানা পুলিশ তাৎক্ষনিকভাবে ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে লাশটি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসেন।

এ বিষয়ে সেনবাগ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) ইকবাল হোসেন পাটোয়ারী লাশ উদ্ধারের বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান লাশের সুরতহাল সহ আনুষঙ্গিক কার্যক্রম সম্পন্ন হয়েছে, প্রাথমিকভাবে (৫/৬ দিন পূর্বে) স্টোকজনিত কারনে মৃত্যু হয় বলে ধারনা করা হচ্ছে। তারপরও মৃত্যুর সঠিক কারন নিরুপনে লাশ ময়নাতদন্তের নিমিত্তে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালের মর্গে প্রেরন প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

Facebook Comments Box


এ জাতীয় আরও খবর
এক ক্লিকে বিভাগের খবর