1. admin@digonterbarta24.com : admin :
সোমবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২১, ১১:৫২ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের হাইওয়ে পুলিশের হাতে চাঁদাবাজ ইয়াছিন গাজী আটক এমপি দিদারের সাথে আকবরশাহ-পাহাড়তলী নেতাকর্মীদের সৌজন্য সাক্ষাৎ ঝালকাঠীতে সড়কের পাশে শতবর্ষী গাছসহ বিভিন্ন প্রজাতির ৬৬৪টি গাছ কাটা হচ্ছে ৫০শয্যা বিশিষ্ট এমডিএস হাসপাতালের নতুন ভবনের কাজ উদ্ধোধন করেন পার্বত্য মন্ত্রী বীর বাহাদুর শেরপুরে আন্তর্জাতিক স্বেচ্ছাসেবক দিবস-২০২১খ্রিঃ উদযাপন তাড়াশে ইউপি নির্বাচনে সগুনায় নোকা প্রতীক পেয়েছেন মোঃ নজরুল ইসলাম চৌধুরী পৌরসভার নবনির্বাচিত মেয়র ও কাউন্সিলরদের দায়িত্ব গ্রহণ সম্পন্ন বাংলাদেশের দুই এয়ারপোর্টে Rtpcr ল্যাব বসানো আমিরাত প্রবাসীদের দাবি নানিয়ারচরে যুব রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির আন্তর্জাতিক সেচ্ছাসেবক দিবস পালন রাঙামাটিতে নাগরিক পরিষদের ২য় প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন

শেরপুরে দিনদুপুরে ৩৫ লাখ টাকা ছিনতাই, জেলখানায় বসে পরিকল্পনা করেন ছিনতাইয়ের

দিগন্তের বার্তা ২৪ ডেস্ক
  • সময় : সোমবার, ৯ আগস্ট, ২০২১
  • ৩৫৮ বার পঠিত

শেরপুর প্রতিনিধিঃ অবশেষে শেরপুরে দিনদুপুরে ৩৫ লাখ টাকা ছিনতাইয়ের ঘটনার জট খুলেছে, কারাগারে বসেই ছিনতাইয়ের পরিকল্পনা করেন ৩ আসামি গত ২১ মার্চ রবিবার দুপুরে শেরপুর-জামালপুর সংযোগ স্থল ব্রহ্মপুত্র সেতুর ইজারাদারদের অংশীদার ব্যবসায়ী নূর হোসেন ও তার ভাতিজা মোটরসাইকেল চালক লিটনকে নিয়ে ৩৫ লক্ষ টাকা ব্যাংকে জমা দেয়ার জন্য আসছিলেন ।

মোটরসাইকেল যোগে শেরপুরে আসার পথে পৌর শহরের মধ্যশেরী এলাকায় ৫ সদস্যের একটি ছিনতাইকারী দল ডিবি পুলিশের পরিচয় দিয়ে চোখে মরিচের গুঁড়া ছিটিয়ে টাকার ব্যাগ ছিনতাই করে নিয়ে যায় । এ ঘটনায় ওই দিনই নূর হোসেন নিজে বাদী হয়ে শেরপুর সদর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। ডিবি পুলিশের হাতে মোটরসাইকেল চালক লিটনসহ সন্দেহভাজন ৩ জন গ্রেফতার হলেও উদঘাটন হয়নি কোন রহস্য।

বিষয়টি শেরপুর জুড়ে ব্যাপক আলোচনা ও সমালোচনার সৃষ্টি করে দেয়।

এ বিষয়ে পুলিশ দীর্ঘ তদন্ত করে পরবর্তীতে মামলাটি শেরপুর-জামালপুরের দায়িত্বে থাকা পিবিআইয়ের কাছে হস্তান্তর করে । পিবিআই (পুলিশ ব্যুরো অফ ইনভেস্টিগেশন) জানায় প্রযুক্তির সহয়তায় চলতি আগষ্ট মাসের ৮ তারিখে আসামি তুষারকে তদন্ত কর্মকর্তা ও পিবিআইয়ের পরিদর্শক মোখলেছুর রহমান ময়মনসিংহের গাঙ্গিনাপাড় এলাকা থেকে গ্রেফতার করে। তদন্ত কর্মকর্তা জানান ঘটনার আগে বিভিন্ন মামলায় অভিযুক্তদের মধ্যে অন্তত তিনজন জেল খানায় ছিলেন।

জেলের মধ্যে বসে তারা ডাকাতির সিদ্ধান্ত নেয়। জামিন পেয়ে পরপর তিনজন বের হয়ে আসলে তারা এই পরিকল্পনায় আরও তিনজনকে যুক্ত করে। এই ছয়জনের মধ্যে অন্তত তিনজন চাকুরিচ্যুত সাবেক বিডিআর সদস্য। এই ছয়জন মিলে এই মামলার বাদীর পাশে ঘনিষ্ঠ এক জনের সাথে যোগাযোগ করে।

যিনি এই টাকা পয়সার শেরপুর ব্যাংকে আদান প্রদানের খবর জানতেন। এই খবর দাতার কাছ থেকেই ঘটনার দিনক্ষণ জেনে ফিল্মি ষ্টাইলে এই দুর্ধর্ষ ঘটনা ঘটানো হয়। ঘটনার সময় দুটি মোটরসাইকেল ও একটি প্রাইভেটকার ব্যবহার করা হয়। ঘটনার সাথে শেরপুর সদর উপজেলার অন্তত তিনজন জড়িত থাকার কথা জানা যায়।
এই অঞ্চলের পিবিআইয়ের দায়িত্বে থাকা পুলিশ সুপার এম এম সালাহ উদ্দীন বলেছেন, ওই চাঞ্চল্যকর ঘটনার রহস্য উদঘাটন করা সম্ভব হলো।

জবানবন্দি অনুযায়ী, ঘটনায় জড়িত অন্যদেরও আইনের আওতায় আনা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও সংবাদ

ফেসবুকে আমরা

© স্বত্ব সংরক্ষিত © দিগন্তের বার্তা ২৪
Theme Customized BY Theme Park BD